ফ্রান্সের পণ্য বয়কটের আহ্বান এরদোয়ানের

ফ্রান্সের পণ্য বয়কটের আহ্বান এরদোয়ানের

ইসলামবিদ্বেষ ছড়ানোর অভিযোগে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট এম্যানুয়েল ম্যাখোঁর বিরুদ্ধে সমালোচনা করে আসছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেপ এরদোয়ান।

সোমবার বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, এর মধ্যে তুর্কি নাগরিকদের ফরাসি পণ্য ক্রয় না করার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

এরদোয়ান বলেন, ‘তারা যেমন ফ্রান্সে বলেছিল তুর্কি ব্রান্ডের পণ্য কিনবেন না। আমি আমার সব নাগরিককে বলছি, এখন থেকে কোনো ফ্রান্সের ব্রান্ডকে সহযোগিতা করবেন না বা কিনবেন না।’

তুরস্কের পরিসংখ্যান ইনস্টিটিউটের তথ্য অনুযায়ী, তুরস্কের আমদানি বাণিজ্যের শীর্ষ দশ দেশের একটি হচ্ছে ফ্রান্স। একই সঙ্গে তুরস্কের রপ্তানি বাণিজ্যের সপ্তম বৃহত্তম বাজার ফ্রান্স। দেশটির রপ্তানি পণ্যের মধ্যে তাদের তৈরি গাড়ি সবচেয়ে বেশি বিক্রি হয় তুরস্কে।

শনিবার তুর্কি প্রেসিডেন্ট বলেছিলেন, মুসলিমদের নিয়ে ম্যাখোঁর সমস্যা আছে। এ জন্য তার মানসিক চিকিৎসার প্রয়োজন।

মহানবী (সা.)-এর ব্যঙ্গাত্মক কার্টুন নিয়ে আলোচনা করায় ফ্রান্সে এক শিক্ষক হত্যাকাণ্ডের শিকার হন। এ ঘটনায় গোটা দেশে ক্ষোভ দেখা দেয়। যার জেরে একটি মসজিদ বন্ধ করে দেয় ফ্রান্স সরকার। এ ছাড়া প্যারিসে হিজাব পরিহিত দুই নারীও ছুরিকাঘাত হন।

এর মধ্যে ম্যাখোঁর একাধিক বক্তব্যে মুসলিমদের সমালোচনা উঠে আসে। ফ্রান্স এমন ব্যঙ্গাত্মক কার্টুন বন্ধ করবে না বলে মন্তব্য করেন তিনি। তার এ মন্তব্যের জেরে মধ্যপ্রাচ্যসহ সারা বিশ্বে দেশটির পণ্য বয়কটের ডাক উঠেছে।

কুয়েত, জর্ডান এবং কাতারের কিছু কিছু দোকান থেকে ফরাসি পণ্য সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া লিবিয়া, সিরিয়া এবং গাজা উপত্যকায় বিক্ষোভ হয়েছে।

Leave a Reply