ঢাবি শিক্ষক জিয়ার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা

ঢাবি শিক্ষক জিয়ার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা

রবিবার, ২৫ অক্টোবর ২০২০, ৯ কার্তিক ১৪২৬
Search
আর্কাইভবাংলা কনভার্টারবেটা ভার্সন
প্রচ্ছদজাতীয়রাজনীতিআন্তর্জাতিকখেলাধুলাবিনোদনসারাদেশঅর্থ ও বাণিজ্যআইন ও অপরাধশিক্ষাঙ্গনজবসদিনের কথাপ্রযুক্তি ও গবেষণাসাক্ষাৎকারমুক্ত মতামতলাইফ স্টাইলপ্রবাস-পরবাসসাহিত্য ও সংস্কৃতিস্বাস্থ্যসেবামিডিয়া লিংকআবহাওয়াভিডিওবাংলাদেশ
আজকের শিরোনাম :
দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ হয়ে সাংবাদিকদের কাজ করতে হবে : প্রধানমন্ত্রী পদ্মা সেতুর ৫ দশমিক ১ কিলোমিটার দৃশ্যমান ফরিদপুরে ট্রাক-মাইক্রোবাসের সংঘর্ষে নিহত ২ সেন্টমার্টিনে আটকে পড়া পর্যটকরা ফিরছেন আজ কারওয়ান বাজারে বিডিবিএল ভবনে অগ্নিকাণ্ড

প্রচ্ছদ
আইন ও অপরাধ
ঢাবি শিক্ষক জিয়ার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা
ঢাবি শিক্ষক জিয়ার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা
অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশ: ২৫ অক্টোবর ২০২০, ১৩:১৯

‘আসসালামু আলাইকুম’ ও ‘আল্লাহ হাফেজ’ বলাকে জঙ্গিবাদের চর্চা বলে মন্তব্য করার অভিযোগে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্রিমিনোলজি বিভাগের অধ্যাপক জিয়া রহমানের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দুটি মামলা হয়েছে।
আজ রবিবার (২৫ অক্টোবর) বাংলাদেশ সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক মোহাম্মদ আসসামছ জগলুল হোসেনের আদালতে এ মামলা দুটি করা হয়। আদালত এ বিষয় এখনো কোনো আদেশ দেননি।

এর আগে বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর) ড. জিয়া রহমানকে বক্তব্য প্রত্যাহার করে ক্ষমা চাওয়ার আহ্বান জানিয়ে লিগ্যাল নোটিশ পাঠিয়েছিলেন মুহম্মদ মাহবুব আলমের পক্ষে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মুহম্মদ শেখ ওমর শরীফ।
মাসিক আল বাইয়্যিনাত ও দৈনিক আল ইহসানের সম্পাদক মুহম্মদ মাহবুব আলম একটি এবং ইমরুল হাসান নামে এক আইনজীবী অপর মামলাটি করেন।
মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, ‘আসসালামু আলাইকুম’ বলা ও ‘আল্লাহ হাফেজ’ বলাকে গর্হিত, নিন্দনীয়, জঘন্য ব্যাখ্যা করেন অধ্যাপক জিয়া রহমান। এসবকে জঙ্গিবাদের সঙ্গে সম্পৃক্ত করেন তিনি।
সম্প্রতি বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেলের ‘উপসংহার’ নামক টক শোতে ‘ধর্মের অপব্যাখ্যায় জঙ্গিবাদ’ বিষয়ক আলোচনায় মুসলিমদের শুদ্ধ উচ্চারণে ‘আসসালামু আলাইকুম’ বলা ও ‘আল্লাহ হাফেজ’ বলাকে গর্হিত, নিন্দনীয়, জঘন্য ব্যাখ্যা করেন অধ্যাপক জিয়া রহমান।

Leave a Reply