স্বল্পোন্নত দেশগুলোকে ২০৩০ পর্যন্ত সহায়তা দিতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

স্বল্পোন্নত দেশগুলোকে ২০৩০ পর্যন্ত সহায়তা দিতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

মহামারি করোনাভাইরাস মোকাবিলায় জাতিসংঘকে সমন্বিত পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

খাদ্য ও পুষ্টি নিরাপত্তা, সবার জন্য সুস্বাস্থ্য, মান সম্মত শিক্ষা নিশ্চিত করাসহ ২০৩০ সালের মধ্যে এমন ১৭টি লক্ষ্যপূরণে কাজ করছে উন্নয়নশীল দেশগুলো। করোনাভাইরাসের কারণে স্বাস্থ্য ও প্রণোদনা খাতে ব্যয় বেড়ে যাওয়ায় টেকসই উন্নয়ন খাতে অর্থায়নে সংকট দেখা দিচ্ছে। তাই জাতিসংঘ সদর দপ্তরে

মঙ্গলবার (২৯ সেপ্টেম্বর) উন্নত ও উন্নয়নশীল দেশের সরকার ও রাষ্ট্র প্রধানদের নিয়ে একটি বৈঠকের আয়োজন করা হয়। করোনাভাইরাসের সময়ও টেকসই উন্নয়নের লক্ষ্য অর্জনে অর্থায়নের বিষয়ে তাদের ভাবনার কথা জানান সরকার ও রাষ্ট্র প্রধানরা।

সেখানে অংশ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, টেকসই উন্নয়নের লক্ষ্য বাস্তবায়ন করতে হলে উন্নত দেশগুলোকে আর্থিক প্রণোদনা বাড়াতে হবে। স্বল্পোন্নত দেশগুলোকে ২০৩০ সাল পর্যন্ত আন্তর্জাতিক সহায়তা দেয়া অব্যাহত রাখতে হবে। এসময় আর্থিক সংকট মোকাবিলায় বিনিয়োগ বাড়ানো, শুল্ক ও কোটামুক্ত সুবিধা প্রদান, অভিবাসী শ্রমিকদের সহায়তা অব্যাহত রাখাসহ ৬টি সুপারিশ করেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রী আরো বলেন, উন্নয়নশীল দেশের প্রতি উন্নত দেশগুলোর করা ওয়াদা পূরণ করতে হবে। সামাজিক উন্নয়নে যে দশমিক ৭ শতাংশ অর্থ দেয়ার ওয়াদা তারা করেছে সেটি পূরণ করতে হবে। একই সঙ্গে প্যারিস জলবায়ু চুক্তিও বাস্তবায়ন করতে হবে। আর এজন্য জাতিসংঘকে চালকের ভূমিকা নিতে হবে।

Leave a Reply