সুশান্তকে খুন করেছে দাউদের গ্যাং, দাবি সাবেক গোয়েন্দা কর্মকর্তার!

সুশান্তকে খুন করেছে দাউদের গ্যাং, দাবি সাবেক গোয়েন্দা কর্মকর্তার!

“আত্মহত্যা নয়, সুশান্ত সিং রাজপুতকে খুন করেছে দাউদ ইব্রাহিমের গ্যাং!” বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন ভারতের সাবেক গোয়েন্দা কর্মকর্তা। তার দাবি, খুব ঠান্ডা মাথায় ছক কষে খুন করা হয়েছে অভিনেতাকে। কোনও পেশাদার খুনি ছাড়া একাজ অসম্ভব! সোশ্যাল মিডিয়ায় নেটিজেনরা যখন সুশান্ত মৃত্যুরহস্যের কিনারা করতে সিবিআইকে চাইছে, ঠিক তার মাঝেই দেশটির গোয়েন্দা সংস্থা ‘র’-এর অফিসার এনকে সুদ বিস্ফোরক দাবি তুললেন যে, দাউদের দলই সুশান্তকে খুন করেছে।
প্রসঙ্গত, দাউদ ইব্রাহিমের সঙ্গে গ্ল্যামার জগতের সম্পর্কের কথা অনেকেই জানেন। অতীতেও বলিউড ইন্ডাস্ট্রির প্রভাবশালী ব্যক্তিত্বরা দাউদের নামে কাঁপতেন বলে প্রচার রয়েছে। সেকথাও অবশ্য কারও অজ্ঞাত নয়! কাজেই এনকে সুদের এই বিস্ফোরক দাবিকে কেউ নস্যাৎও করছেন না! তার কথায়, সুশান্ত সিংহ রাজপুতের মৃত্যুর সঙ্গে গভীরভাবে আন্ডারওয়ার্ল্ডের যোগ রয়েছে।
এনকে সুদের দাবি, “দাউদের কোনও শাগরেদের হাতেই সুশান্ত খুন হয়েছেন। কারণ, গত কয়েক মাস ধরেই সুশান্তকে হুমকি দেওয়া হচ্ছিল। এজন্য তিনি প্রায় ৫০ বার সিমকার্ড বদলে ফেলেছিলেন।” কেউ তাঁকে খুন করে ফেলতে পারে, এই আশঙ্কায় নাকি অভিনেতা গাড়িতে ঘুমোতেন বলেও দাবি করেন তিনি।
এই প্রাক্তন গোয়েন্দা আধিকারিকের সন্দেহ, পেশাদার খুনিই সুশান্তকে খুন করেছে। তার যুক্তি, “অভিনেতার মৃত্যুর আগের দিন সিসিটিভি ক্যামেরা বন্ধ করে দেওয়া থেকে শুরু করে, ডুপ্লিকেট চাবি হারিয়ে যাওয়ার মতো অনেক তথ্যপ্রমাণ রয়েছে, তা দেখিয়ে দেয় যে, কেউ অত্যন্ত ঠান্ডা মাথায় সুশান্তের খুনের ছক কষেছে।”
দিনি দাবি করেন, বলিউডের রাশ যে এখনও দাউদের হাতেই রয়েছে সেকথাই জানান দিচ্ছে সুশান্তের মৃত্যুর ঘটনা। পেশীবল, অর্থ ও উচ্চপদে আসীনদের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ যোগাযোগের মাধ্যমে দাউদ এখনও মুম্বাইয়ের অপরাধ জগৎকে নিয়ন্ত্রণ করে। কিন্তু দিন কয়েক আগেই তো পাকিস্তানে দাউদের করোনায় মৃত্যুর খবর শোনা গেছে। তাহলে?

Leave a Reply