বলিউড তারকা রণবীর সিং হাঁটু গেড়ে বসলেন।

বলিউড তারকা রণবীর সিং হাঁটু গেড়ে বসলেন।

একটা গোলাপ তুলে দিলেন। না, দীপিকা পাড়ুকোনকে নয়। একজন বৃদ্ধাকে, যিনি বসে আছেন একটা হুইলচেয়ারে। বৃদ্ধা ফুলটি গ্রহণ করলেন। আর চুমু এঁকে দিলেন রণবীরের চিবুকে। ভাইরাল হওয়া ভিডিওটিতে দেখা যায় এটুকুই।

১৯৮৩ সালে ভারতের প্রথম ক্রিকেট বিশ্বকাপ জয় নিয়ে তৈরি হচ্ছে চলচ্চিত্র ‘এইটি থ্রি’। সেই শুটিংয়ের জন্যই লন্ডনে আছেন তিনি। কাজের ফাঁকে ভক্তদের জন্য কিছুটা সময় কাটাতে গিয়েছিলেন সাউথ হল এলাকায়। ভারতীয়রা এই এলাকাকে তো রীতিমতো নিজেদের কলোনি বানিয়ে নিয়েছে। ভাইরাল হওয়া ভিডিওটি সেখানকার। ভিডিওতে রণবীরকে চিনতে একটুও কষ্ট হয় না।

রণবীরের জন্য কি প্রাচ্য, কি প্রতীচ্য। বিদেশ–বিভুঁই হলে কী হবে, রণবীরের চারপাশে ভক্তদের ভিড়। কিন্তু তাতে মোটেও বিরক্ত নন এই তারকা। ধৈর্য ধরে হাসিমুখে সবার সঙ্গে করমর্দন করলেন তিনি। কুশলবিনময় করতেও ভুললেন না। আর তুললেন সেলফি।

সে এক উৎসবমুখর পরিবেশ। দুজন লাল, হলুদ, কমলা রঙের পোশাক পরে ভাংরা বাজাচ্ছেন। বাদ্য বাজছে, আর রণবীর সিং পা মেলাবেন না, তাই কি হয়। দিব্যি ভক্তদের সঙ্গে ভাংরার তালে পা মেলালেন রণবীর। কয়েক সেকেন্ডেই বুঝিয়ে দিলেন, এ নাচও বেশ ভালোই রপ্ত রয়েছে তাঁর। চারপাশে সবার হাতের মুঠোফোনের ক্যামেরা তাক করা রয়েছে রণবীরের দিকে।

এর মধ্যেই রণবীর এক বৃদ্ধাকে প্রেম নিবেদন করলেন পশ্চিমা নিয়মে। এই ভিডিও রণবীর সিংয়ের ফ্যান ক্লাবের মাধ্যমে মুহূর্তেই ছড়িয়ে পড়ল ইন্টারনেট দুনিয়ায়। এখানেই শেষ নয়, চলে যাওয়ায় আগে ওই নারীকে গাঢ় আলিঙ্গনও করলেন নীল রঙের স্যুট পরা রণবীর। আবার এক খুদে ভক্তকে কোলেও নিলেন।

বর্তমানে রণবীর লর্ডসের মাঠে। তিনি কপিল দেব হয়ে বল করছেন, ব্যাট করছেন। ভারতে প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপের স্বাদ দিতে নেতৃত্ব দিচ্ছেন দলকে। আবার কপিল দেবের পোশাক খুলে হয়ে উঠছেন রণবীর সিং। দেশের বাইরের দেশটা ঘুরে দেখছেন, ভক্তদের সময় দিচ্ছেন। এই ছবিতেই কপিল দেবের স্ত্রী রোমির ভূমিকায় অভিনয় করছেন স্ত্রী দীপিকা পাড়ুকোন। সুযোগ পেয়ে তাই অভিনয় করতে করতে আর অভিনয়ের ফাঁকে ফাঁকে খানিক সংসারটাও করে নিচ্ছেন।

Leave a Reply