দুধের মানের ক্ষেত্রে নমনীয়তা না দেখাতে ১০ বিশিষ্ট নাগরিকের আহ্বান

দুধের মানের ক্ষেত্রে নমনীয়তা না দেখাতে ১০ বিশিষ্ট নাগরিকের আহ্বান

‘কোনো প্রকার নমনীয়তা প্রদর্শন না করে জনগণের জীবন রক্ষার স্বার্থে বাজারজাত দুধের সঠিক মান নিয়ন্ত্রণ নিশ্চিত করার জন্য সরকারের প্রতি দাবি জানিয়েছেন দেশের দশজন বিশিষ্ট নাগরিক।

এদের মধ্যে রয়েছেন জাতীয় অধ্যাপক আনিসুজ্জামান, চিত্রশিল্পী রফিকুন নবী, অভিনয়শিল্পী ফেরদৌসী মজুমদার, মামুনুর রশীদ, আতাউর রহমান, লেখক মফিদুল হক, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব হাসান ইমাম, রামেন্দু মজুমদার, নাসির উদ্দিন ইউসুফ, গোলাম কুদ্দুস ও হাসান আরিফ।

আজ মঙ্গলবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তারা বলেন, আমরা গভীর উদ্বেগে লক্ষ্য করছি যে সাম্প্রতিক সময়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক আ ব ম ফারুকের নেতৃত্বে একদল গবেষক বাজারজাত গরুর দুধের পরীক্ষা করে তাতে মানবদেহের জন্য ক্ষতিকারক অ্যান্টিবায়টিক ও ডিটারজেন্ট এর সন্ধান পেয়েছেন। গবেষকের ভাষ্য মতে বাজার থেকে তিনি এবং তার সহকর্মীরা দশটি নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করেন, যার প্রতিটিতেই ঐ সকল উপাদান বিদ্যমান। দুধ শিশু ও প্রবীণদের অন্যতম খাদ্য। যার পরামর্শ চিকিত্সকগণ নিয়মিত দিয়ে থাকেন।

অন্যদিকে চা, মিষ্টান্ন ও অন্যান্য খাদ্যে দুধের ব্যাপক ব্যবহার বাংলাদেশে হয়ে থাকে। ফলে বাজারজাত দুধ দেশের সমগ্র জনগোষ্ঠী পুষ্টিকর ও সুস্বাদু খাদ্য হিসেবে গ্রহণ করে থাকেন। দেশের সর্বস্তরের মানুষের জীবনের স্বার্থে সঠিক মান ও প্রক্রিয়া বজায় রেখে গরুর দুধ বাজারজাত করা সংশ্লিষ্ট মহলের নৈতিক ও আইনগত দায়িত্ব।

Leave a Reply