নির্বাচনী পোস্টার সরাতে আজ থেকে মাঠে নামছে ভ্রাম্যমাণ টিম

নির্বাচনী পোস্টার সরাতে আজ থেকে মাঠে নামছে ভ্রাম্যমাণ টিম

আসন্ন জাতীয় একাদশ নির্বাচনকে ঘিরে পাড়া-মহল্লা সরগরম হয়ে উঠেছে। বিলবোর্ড থেকে আরম্ভ করে ব্যানার, পোস্টার ফেস্টুন প্রচারণায় ছেয়ে গেছে সারাদেশে। তবে এদিকে পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী নির্বাচনী প্রচারণার এসব ব্যবহারের সময় শেষ। আজ সোমবার (১৯ নভেম্বর) থেকে এ ধরণের প্রচারণা বন্ধ করতে মাঠে নামবে ভ্রাম্যমাণ টিম। কোথাও কোন ধরনের নির্বাচনী প্রচারণামূলক বিলবোর্ড, ব্যানার ইত্যাদি দেখা গেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে ইসি সূত্রে জানা যায়।

এ ধরণের তদারকির জন্য ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) ছয়টি ভ্রাম্যমাণ টিম মাঠে নামছে। নগরীর বিভিন্ন স্থানে টিমগুলো অভিযান চালাবে। নির্বাচনী আচরণ বিধিমালা লঙ্ঘন করলে অনধিক ৬ মাসের কারাদণ্ড অথবা অনধিক ৫০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড অথবা উভয় দণ্ডের বিধান রয়েছে।

এ জন্য সংশ্লিষ্ট সবাইকে পোস্টার অপসারণের আহ্বান জানিয়েছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি)। সোমবার (১৯ নভেম্বর) থেকে ছয়টি টিম সকাল ১০টা থেকে ৫টা পর্যন্ত অভিযান পরিচালনা করবে। টিমে থাকছেন সাত জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট।

ডিএনসিসির নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ সাজিদ আনোয়ার এ ব্যাপারে জানান, ইসির নির্দেশনার পরে আমরা নির্বাচনী পোস্টার অপসারণ করছি। তবে সোমবার থেকে আমরা অ্যাকশনে যাব। পোস্টার না সরালেই আইনানুগ ব্যবস্থা। নির্বাচনী পোস্টার সাঁটানো দেখলেই সঙ্গে সঙ্গে জেল জরিমানা করবো। আমরা পোস্টার দেখলেই বুঝতে পারবো এটা কত দিন আগে লাগানো হয়েছে, সেই মোতাবেক ব্যবস্থা। ছয়টি টিমে ভাগ হয়ে ডিএনসিসি এলাকায় আমরা অভিযান পরিচালনা করবো।

ডিএনসিসি সূত্র জানায়, রোববার (১১ নভেম্বর) থেকে পাঁচ দিনে ১ লাখ ৮৭ হাজার ৫শ’টি নির্বাচনী পোস্টার অপসারণ করা হয়েছে। ৯০ শতাংশ পোস্টারই নির্বাচন সংক্রান্ত ব্যক্তিগত পোস্টার।

Leave a Reply