একদিনে আরও পাঁচ হাজার মৃত্যু, শনাক্ত পৌনে ২০ লাখ

একদিনে আরও পাঁচ হাজার মৃত্যু, শনাক্ত পৌনে ২০ লাখ

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বেড়েই চলেছে। জানুয়ারির শুরু থেকে প্রতিদিন সারাবিশ্বে সংক্রমণের নতুন নতুন রেকর্ড হচ্ছে। বিশ্বজুড়ে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় সংক্রমিত হয়ে আরও চার হাজার ৯৮৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ১৯ লাখ ৭৯ হাজার ৮৫৬ জন। এছাড়া আক্রান্ত হওয়ার পর চিকিৎসা শেষে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১৩ লাখ ৫ হাজার ৭১২ জন।

এ নিয়ে মহামারি শুরুর পর বিশ্বে করোনায় মোট মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৫৫ লাখ ৬৩ হাজার ২২৬ জনে। আর সংক্রমণ বেড়ে দাঁড়ালো ৩৩ কোটি ১২ লাখ ৬৪ হাজার ৭৬৭ জনে। এছাড়া সেরে উঠেছেন মোট ২৬ কোটি ৮৯ লাখ ৮২ হাজার ৮৭৭ জন।

মঙ্গলবার (১৮ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ৮টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত, মৃত্যু ও সুস্থতার হিসাব রাখা আন্তর্জাতিক ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারস থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় সবচেয়ে বেশি সংক্রমিত হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে। করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত দেশের তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ৩ লাখ ৮৯ হাজার ৫৫৩ জন। একই সময়ে মৃত্যু হয়েছে ৪৬৮ জন। এ নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে এ পর্যন্ত করোনায় ৬ কোটি ৭৬ লাখ ৩১ হাজার ১৯১ জন সংক্রমিত হয়েছেন। তার মধ্যে মারা গেছেন ৮ লাখ ৭৪ হাজার ৩২১ জন।

দৈনিক সংক্রমণে গত ২৪ ঘণ্টায় যুক্তরাষ্ট্রের পরই রয়েছে ভারত। দেশটিতে একদিনে সংক্রমিত হয়েছেন ২ লাখ ২২ হাজার ৫৭৯ জন। আর মারা গেছেন ৩০২ জন। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত ৪ লাখ ৮৬ হাজার ৭৮৪ জনের মৃত্যু এবং ৩ কোটি ৭৬ লাখ ২ হাজার ৮৩২ জন সংক্রমিত হয়েছেন। আর সেরে উঠেছেন ৩ কোটি ৫৩ লাখ ৭৮ হাজার ৮৭২ জন।

মৃত্যুর দিক থেকে গত ২৪ ঘণ্টায় সারাবিশ্বে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে রাশিয়ায়, ৬৭০ জন। এছাড়া সংক্রমিত হয়েছেন ৩০ হাজার ৭২৬ জন। এ নিয়ে দেশটিতে মোট শনাক্ত হলো ১ কোটি ৮ লাখ ৩৪ হাজার ২৬০ জন। তাদের মধ্যে মারা গেছেন ৩ লাখ ২১ হাজার ৯৯০ জন। আর সুস্থ হয়েছেন ৯৮ লাখ ৭৮ হাজার ৩৭১ জন।

দৈনিক সংক্রমণে এরপরেই রয়েছে যুক্তরাজ্য। দেশটিতে একদিনে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন এক লাখ ৪২ হাজার ২২৪ জন এবং মারা গেছেন ৭৭ জন। দেশটিতে এ পর্যন্ত এক কোটি ৪৬ লাখ ১৭ হাজার ৩১৪ জন আক্রান্ত এবং মারা গেছেন এক লাখ ৫০ হাজার ২৩০ জন। একই সময়ে ইতালিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন এক লাখ ১ হাজার ৭৬২ জন এবং মারা গেছেন ২২৭ জন।

একদিনে আরও পাঁচ হাজার মৃত্যু, শনাক্ত পৌনে ২০ লাখ

দীর্ঘ হচ্ছে মৃত্যুর মিছিল/সংগৃহীত ছবি

মোট সংক্রমণের দিক থেকে তৃতীয় ও মৃতের তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা ব্রাজিলে ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন ১৬২ জন। এছাড়া নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ৭৬ হাজার ৩৪৫ জন। দেশটিতে এ পর্যন্ত শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়ালো ২ কোটি ৩০ লাখ ৮৩ হাজার ২৯৭ জন। তাদের মধ্যে মারা গেছেন ৬ লাখ ২১ হাজার ২৬১ জন।

সংক্রমণের তালিকায় এরপরেই রয়েছে যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স, রাশিয়া, তুরস্ক, ইতালি, স্পেন ও জার্মানি।

এদিকে, বাংলাদেশেও করোনার অতি সংক্রামক ধরন ডেল্টা ও ওমিক্রনের প্রভাবে ফের সংক্রমণ বেড়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে নতুন রোগী হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন ৬ হাজার ৬৭৬ জন। গেলো ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার ছিল প্রায় ২১ শতাংশ। দেশে এ পর্যন্ত মোট ১৬ লাখ ২৪ হাজার ৩৮৭ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। আর মারা গেছেন ২৮ হাজার ১৫৪ জন।

২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহান প্রদেশের হুবেই শহরে প্রথম করোনার অস্তিত্ব শনাক্ত হয়। কয়েক মাসের মধ্যেই ভাইরাসটি বিশ্বের অধিকাংশ দেশে ছড়িয়ে পড়ে। গত বছরের ১১ মার্চ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা করোনাকে ‘বৈশ্বিক মহামারি’ হিসেবে ঘোষণা করে।

আন্তর্জাতিক শীর্ষ খবর