চীন বাংলাদেশের উন্নয়নের অন্যতম বড় অংশীদার: বাণিজ্যমন্ত্রী

চীন বাংলাদেশের উন্নয়নের অন্যতম বড় অংশীদার: বাণিজ্যমন্ত্রী

বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন, চীন বাংলাদেশের উন্নয়নের অন্যতম বড় অংশীদার। ব্যবসা-বাণিজ্য ক্ষেত্রেও চীনের সঙ্গে বাংলাদেশের সম্পর্ক খুবই গুরুত্বপূর্ণ। বিশ্বব্যাপী কোভিড-১৯ এর সময়ও বাংলাদেশের রপ্তানিমুখী শিল্প কলকারখানা চালু রাখতে এবং স্বাস্থ্য সুরক্ষাসামগ্রী সরবরাহের ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় সাপ্লাই চেইন চালু রেখে সহযোগিতা করেছে চীন।

আজ রোববার (১০ অক্টোবর) ঢাকায় ইআরএফ কনফারেন্স রুমে বাংলাদেশ চায়না চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (বিসিসিসিআই) এবং ইকোনমিক রিপোর্টার্স ফোরামের (ইআরএফ) যৌথভাবে আয়োজিত ‘বেস্ট রিপোর্টিং অ্যাওয়ার্ড অন বাইলেটারেল রিলেশনশিপ বিটুইন বাংলাদেশ অ্যান্ড চায়না’ শীর্ষক পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, বিশ্বব্যাপী এখন বাণিজ্য কূটনীতি বেশ গুরুত্বপূর্ণ। ব্যবসা-বাণিজ্য প্রসারের জন্য প্রতিটি দেশ এখন কূটনীতিকে ব্যবহার করছে। চীনের সঙ্গে বাংলাদেশের দ্বিপাক্ষিক এবং অর্থনৈতিক সম্পর্ক বেশ ভালো। ফলে চীন বাংলাদেশের গুরুত্বপূর্ণ অর্থনৈতিক ও বাণিজ্যিক অংশীদার।

ইআরএফের উদ্যোগের প্রশংসা করে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, প্রচারমাধ্যম একটি দেশের অর্থনীতি, ব্যবসা-বাণিজ্য এবং উন্নয়নের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। চীনের সঙ্গে বাংলাদেশের বাণিজ্য ও বিনিয়োগের বিষয়ে ইতিবাচক ভূমিকা রয়েছে বলে আমি মনে করি। আগামী দিনগুলোতেও দেশের স্বার্থে প্রচারমাধ্যম দায়িত্বশীল ভূমিকা রাখবে। দায়িত্বশীল রিপোর্টিংয়ের জন্য যারা আজ পুরস্কৃত হচ্ছেন তারা আগামীতে আরও উৎসাহ নিয়ে দায়িত্ব পালন করবেন। দেশের উন্নয়নের জন্য সম্মিলিতভাবে আমাদের কাজ করতে হবে।

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশে নিযুক্ত চীনের রাষ্ট্রদূত লি জিমিং, বিসিসিসিআই প্রেসিডেন্ট গাজী গোলাম মর্তুজা, ইআরএফ প্রেসিডেন্ট শারমিন রিনভি, ইআরএফের জেনারেল সেক্রেটারি এস এম রাশেদুল ইসলাম, বিসিসিসিআই মহাসচিব মো. শাহজাহান মৃধা বেনু এবং ইআরএফের নির্বাহী কমিটির সদস্য সিরাজুল ইসলাম কাদির।

বাংলাদেশ শীর্ষ খবর