চার ম্যাচ আগেই শিরোপার সুবাতাস পাচ্ছে বায়ার্ন

চার ম্যাচ আগেই শিরোপার সুবাতাস পাচ্ছে বায়ার্ন

ইউরোপিয়ান ক্লাব ফুটবল এখন বিদ্রোহী টুর্নামেন্ট ইউরোপিয়ান সুপার লিগ নিয়ে ব্যস্ত। তবে এর ছিটেফোঁটাও লাগেনি জার্মানি ও ফ্রান্সের ক্লাবগুলোর গায়ে। বিশেষ করে উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বায়ার্ন মিউনিখ নেই সুপার লিগের প্রতিষ্ঠা সদস্য ক্লাবগুলোর মধ্যে।

তবে সুপার লিগের ডামাডোলে মাঠের খেলায় নিজেদের মনোযোগ ঠিকঠাক ধরে রেখেছে বায়ার্ন। জার্মান বুন্দেসলিগায় চার ম্যাচ হাতে রেখেই শিরোপার সুঘ্রাণ পেতে শুরু করেছে তারা। মঙ্গলবার রাতে বেয়ার লেভারকুসেনকে ২-০ গোলে হারিয়ে এখন শিরোপার নিঃশ্বাস ছোঁয়া দূরত্বে ক্লাবটি।

নিজেদের ঘরের মাঠে ম্যাচের শুরুর দিকেই জোড়া গোল করে বসে বায়ার্ন। মাত্র সপ্তম মিনিটেই দলকে লিড এনে দেন এরিক ম্যাক্সিম চুপো মোটিং। তার ছয় মিনিট পরে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন জশুয়া কিমিচ। এরপর একের পর এক আক্রমণ সাজিয়েও আর গোলের দেখা পায়নি বায়ার্ন।

এ জয়ের ফলে দ্বিতীয় স্থানে থাকা লাইপজিগের সঙ্গে পয়েন্টের ব্যবধান ১০-এ উন্নীত করল বায়ার্ন। লিগের ৩০ ম্যাচ শেষে বায়ার্নের সংগ্রহ ৭১ পয়েন্ট। সমান ম্যাচে লাইপজিগ পেয়েছে ৬১ পয়েন্ট। তিন নম্বরে থাকা আইনট্রাখট ফ্রাংকফুটের পয়েন্ট ৫৬।

অর্থাৎ কাগজে কলমে শুধুমাত্র লাইপজিগেরই বেঁচে রয়েছে শিরোপা সম্ভাবনা। সেক্ষেত্রে আবার রয়েছে একগাদা সমীকরণ। লাইপজিগ যদি বাকি থাকা চার ম্যাচের সবকয়টি জেতে এবং বায়ার্ন তাদের চার ম্যাচে শুধু এক পয়েন্ট পায়, তাহলে চ্যাম্পিয়ন হতে পারবে লাইপজিগ।

এখন বাকি থাকা চার ম্যাচে লাইপজিগ পূর্ণ ১২ পয়েন্ট পেলে তাদের সংগ্রহ বেড়ে হবে ৭৩। যা ছাড়িয়ে যেতে চার ম্যাচে মাত্র একটি জয় প্রয়োজন বায়ার্নের। শুধু তাই নয়। লাইপজিগ যদি নিজেদের বাকি চার ম্যাচের একটিতেও হারে, তাহলে আর কোনো ম্যাচ না খেলেই ৭১ পয়েন্ট থাকা বায়ার্ন চ্যাম্পিয়ন হয়ে যাবে।

অর্থ বাণিজ্য শীর্ষ খবর