জামা-জুতা-ব্যাগ কিনতে টাকা পাবে ক্ষুদে শিক্ষার্থীরা

জামা-জুতা-ব্যাগ কিনতে টাকা পাবে ক্ষুদে শিক্ষার্থীরা

উপবৃত্তির পাশাপাশি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের জামা, জুতা ও ব্যাগ কেনার জন্য বছরের শুরুতে এক হাজার করে টাকা দেবে সরকার।

প্রাথমিক শিক্ষার জন্য উপবৃত্তির প্রকল্পের মেয়াদ ২০২১ সাল পর্যন্ত বাড়িয়ে মঙ্গলবার (৫ মে) প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর এ সংক্রান্ত এক আদেশ জারি করেছে।

আদেশে বলা হয়েছে, প্রাথমিক শিক্ষার জন্য উপবৃত্তি দেওয়া প্রকল্পের তৃতীয় পর্যায়ের দ্বিতীয় সংশোধনী প্রধানমন্ত্রী অনুমোদন দিয়েছেন। সে অনুযায়ী প্রকল্পের মেয়াদ ২০২১ সাল পর্যন্ত চলমান থাকবে। সরকার করোনাকালীন প্রান্তিক জনগণের মধ্যে গত জানুয়ারি থেকে জুন পর্যন্ত তৃতীয় ও চতুর্থ কিস্তির উবৃত্তির অর্থ একসঙ্গে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী বছরের প্রথমেই প্রতি শিক্ষার্থীকে জামা, জুতা ও ব্যাগ কিনতে এক হাজার টাকা করে কিউ অ্যালাউন্স দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে অাদেশে উল্লেখ করা হয়েছে।

আগামী ১৪ মের মধ্যে অবশ্যই গত জানুয়ারি থেকে জুন পর্যন্ত এ ছয় মাসের উপবৃত্তির অর্থ মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে বিতরণের জন্য সুবিধাভোগীদের তথ্য রূপালী ব্যাংক, শিউরক্যাশের পোর্টালে আপলোড করার জন্য উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তাদের অনুরোধ করা হয়েছে।

অাদেশে বলা হয়েছে, সরকার ঈদের আগেই উপবৃত্তির অর্থ সুবিধাভোগীদের মোবাইলে পাঠাতে ইচ্ছুক। সুবিধাভোগীদের প্রয়োজনীয় তথ্য ১৪ মের মধ্যে রূপালী ব্যাংকের পোর্টালে আপলোড করতে ব্যর্থ হলে সংশ্লিষ্ট উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দীর্ঘদিন ধরে প্রাথমিকের প্রায় এক কোটি ৪০ লাখ শিক্ষার্থীর উপবৃত্তির অর্থ আটকে ছিল। রোজার ঈদের আগেই শিক্ষার্থীরা একসঙ্গে উপবৃত্তির ছয় মাসের টাকা পাবে।

প্রাথমিক শিক্ষার বিস্তার ও মান উন্নয়নে শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তি দিচ্ছে সরকার। এ উপবৃত্তির ফলে প্রাথমিকে শিক্ষার্থী ভর্তি বাড়ার পাশাপাশি ঝরেপড়ার হারও অনেক কমেছে বলে জানিয়েছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়।

বাংলাদেশ